বুধবার, ১৯ মে ২০২১, ০৫:৫৫ পূর্বাহ্ন

বরিশালে ১১ জনকে ধর্ষণ, অবশেষে কারাগারে সেই ধর্ষক

প্রতিবেদক: / ২১১ জন পড়েছে:
প্রকাশ: রবিবার, ৮ নভেম্বর, ২০২০, ১১:১৫ অপরাহ্ন

560 Views

বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলায় চার বছরে ১১ জনকে ধর্ষণ করা সেই নওরোজ হিরা শিকদারকে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত। বৃহস্পতিবার জেলা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে বিচারক এসএম মাহফুজ আলম জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

নওরোজ হিরা শিকদার বাকেরগঞ্জের পশ্চিম ফরিদপুর গ্রামের বাসিন্দা ও কাকরধা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির মেম্বার। তার বিরুদ্ধে চার বছরে ১১ জনকে ফাঁদে ফেলে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণের অভিযোগে মামলা করেছেন ধর্ষণের শিকার এক স্কুলছাত্রীর মা।

আদালতের বেঞ্চ সহকারী কামাল হোসেন জানান, নওরোজ হিরা শিকদার গত চার বছরে ফাঁদে ফেলে ১১ জনকে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণ করে। এরপর সেই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেড়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে ভুক্তভোগীদের আরো একাধিকবার ধর্ষণ করে। এ ঘটনায় ২৮ অক্টোবর হিরা ও তার সহযোগী মারিয়া আক্তারের বিরুদ্ধে বাকেরগঞ্জ থানায় মামলা করেন ধর্ষণের শিকার এক স্কুলছাত্রীর মা।

মামলার বাদী জানান, প্রাইভেট পড়ানোর কথা বলে ২০১৮ সালের ২৫ অক্টোবর মারিয়া তার মেয়েকে হিরার বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে যাওয়ার পর হিরা ফাঁদে তার মেয়েকে ধর্ষণ করে। চলতি বছরের ২১ জুন মারিয়া ফের তার মেয়েকে হিরার বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে হিরা তাকে পুনরায় ধর্ষণ করে। পুরো ঘটনা জানতে পেরে হিরা ও মারিয়ার বিরুদ্ধে মামলা করেন ধর্ষণের শিকার মেয়েটির মা।

বাকেরগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) নকিব আকরাম হোসেন জানান, গত ১৭ অক্টোবর ধর্ষক হিরার মোবাইলের মেমোরি কার্ড হারিয়ে যায়। ১৯ অক্টোবর থেকে ধর্ষণের ভিডিও ও ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়তে থাকে। ধর্ষণের শিকার প্রত্যেকের বয়স ১২ থেকে ১৮ বছরের মধ্যে। তারা সবাই কাকরধা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। নওরোজ হিরা শিকদার ওই স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির মেম্বার হওয়ায় বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে শিক্ষার্থীদের ধর্ষণ করতেন। তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ........
এক ক্লিকে বিভাগের খবর